একটি পাখি আর একটি সাদা গোলাপের প্রেম কাহিনী- লক্ষণ কুমার মন্ডল

147

আমি একদিন আমার ফুল বাগানে একা
একা ঘুরছিলাম _<<
হঠাৎ দেখলাম একটি সাদা গোলাপকে
একটি পাখি বলতেছে


যে আমি তোমাকে অনেক দিন ধরে
দেখতেছি আর একটি কথা বলতে
চাচ্ছিলাম
বাট আমার সাহস হচ্ছে না …… আজ না
বলেও পারছি না আমি তোমাকে
অনেক ভালবাসি
তখন ঐ সাদা গোলাপটি বললো
বোঝলাম….
তবে আমার একটা সর্ত আছে????
পাখিটি বললো কি সর্ত??? গোলাপটি
বলে উঠলো আমি
যেদিন ঐ লাল
গোলাপদের মত লাল হবো সবাই
আমাকে ভালবাসবে তখন আমি তুমাকে
ভালবাসবো!!!!
পাখিটি ভাবনায় পড়ে গেলো :::: তখন
পাখিটি উড়ে গেল —কিছুক্ষন পর
ফিরেও এলো ___
=
এসে ঐ গোলাপটির দিকে এক দৃষ্টিতে
চেয়ে রইলো—– তারপর পাখিটি কি
করলো — হায়রে ভালবাসা
পাখিটি তার বুক চিরে রক্তে
রাঙ্গিয়ে দিলো গোলাপটিকে……
গোলাপটি তো লাল হয়ে গেলো
পাখির রক্তে কিন্তু পাখিটি আর
বেঁচে থাকতে পারলো না,,,,
সে তার রক্ত আর জীবন দিয়ে তার
ভালবাসাকে সুখী করে দেয়ে গেল


তখন’ই গোলাপটি তার ভুল বুঝতে
পারলো
আর পাখি টাকে ভালবাসতে লাগলো
কিন্তু পাখিটা তো আর নেই…… আজ এই
লাল
গোলাপকে সবাই ভালবাসে!!! সবাই
কে বলি সাদা কালো লাল আর টাকা
দেখে প্রেম করো না মন দেখে করো….
ভালবাসাকে সম্মান করো দেখবা
ভালবাসাও তোমাদেরকে সম্মান
করবে ৷